জীবনে এমন কত বিচ্ছেদ, কত মৃত্যু আছে, ফিরিয়া লাভ কি? পৃথিবীতে কে কাহার…

সহবাসে রেকর্ড গড়তে চান ২১ বছর বয়সী পোল্যান্ডের এক সুন্দরী৷ তার লক্ষ্য এক লাখ পুরুষের সঙ্গে দৈহিক সম্পর্ক স্থাপন করা। পোল্যান্ডের সুন্দরী আনিয়া লিসেওস্কার ইতোমধ্যে তার পুরুষ শিকার অভিযান শুরু করে দিয়েছেন। নয়া রেকর্ডের উদ্দেশ্যে নিজের শহর ওয়ারশ থেকেই এই যাত্রা শুরু করেছেন তিনি৷হাফিংটন পোস্ট সূত্রে খবর, এরইমধ্যে ২৮৪ জন পুরুষের শয্যাসঙ্গী হয়েছেন আনিয়া৷ কিন্তু অবাক করা বিষয় হল, আনিয়ার এমন ঘোষণার পরেও তাকে ছেড়ে যায়নি তার প্রেমিক৷ তবে আনিয়ার এমন পদক্ষেপ মন থেকেও মেনে নিতে পারেননি তিনি।
এই বিষয়ে আনিয়ার বক্তব্য- তার শর্ত মেনেই তার প্রেমিককে তার সঙ্গে সম্পর্ক রাখতে হবে৷ অস্ট্রিয়ান টাইমসকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে আনিয়া জানিয়েছেন, তিনি পোল্যান্ড, ইউরোপ-সহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশের পুরুষের সঙ্গে সহবাস করতে চান৷ তবে অন্য দেশের পুরুষের সঙ্গে সময় কাটানোর আগে তিনি তার মূল্যবান সময় ব্যয় করতে চান পোল্যান্ডের পুরুষদের সঙ্গে৷ ফেসবুক স্টাটাসে এমনই দাবি করেছেন আনিয়া৷
যদিও পোল্যান্ডের মত দেশে বিবাহ বহির্ভূত ‘সহবাস’ নিষিদ্ধ একটি বস্তু৷ কেউ এই বিষয়ে অতিরিক্ত আগ্রহ প্রকাশ করলে তাকে, দুশ্চরিত্র, দেহব্যবসায়ী বা মানসিক বিকৃতি সম্পন্ন হিসেবে মনে করা হয়৷ তবে এ নিয়ে এতটুকু মাথা ব্যথা নেই আনিয়ার৷ যেকোন মূল্যে নিজের লক্ষ্য পূরণে মরিয়া তিনি৷ ইতোমধ্যে নিজের একটি ওয়েবসাইটও খুলেছেন আনিয়া৷ এমনকি বিভিন্ন পুরুষের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন ফেসবুকে একটি নয়া অ্যাকাউন্ট খুলে।
আনিয়া জানিয়েছেন, একজন পুরুষকে মাত্র ২০ মিনিট সময় দেবেন তিনি৷ তবে তার এই পরিকল্পনা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন অনেকেই৷ কারণ, আনিয়ার ওয়েবসাইটটির প্রথম পাতা ছাড়া বাকি পাতাগুলি সক্রিয় নয়৷ এছাড়া কোনও সংবাদমাধ্যম তার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করলেও এড়িয়ে যাচ্ছেন তিনি৷ অনেকে বলছেন, সকলের মনযোগ আকর্ষণ করার জন্যই এমন পাবলিসিটি করেছেন আনিয়া৷
সম্প্রতি একটি রিপোর্টে বলা হয়েছে, আনিয়া তার ঘুম, খাওয়া ছেড়ে এই মিশন পূরণ করতে চাইলে তার মোট সময় লাগবে ৩ বছর আট মাস৷ এছাড়া যদি তিনি কেবল ছুটির দিনেই পুরুষের সংস্পর্শে আসেন তবে নিজের লক্ষ পূরণ করতে আনিয়ার সময় লাগবে ২০ বছরেরও বেশি৷ অনেক সংবাদমাধ্যমের তরফে বলা হয়েছে, গিনেস বুকে রেকর্ড গড়ার জন্যেই আনিয়া এই উদ্যোগ নিয়েছেন৷ কারণ গিনেস বুকে এখনও কেউ এ ধরণের রেকর্ড করেননি৷
তবে আনিয়া জানিয়েছে, তাকে নিয়ে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে৷ তার ফেসবুক অ্যাকউন্ট হ্যাক করে কেউ বা কারা প্রচার করেছে যে আনিয়ার এইডস রয়েছে৷ এর জবাব দিতেই সম্প্রতি নিজের ডাক্তারি পরীক্ষার রিপোর্ট প্রকাশ করেছেন আনিয়া৷ যাতে বলা হয়েছে, আনিয়ার এইচআইভি সংক্রমণ নেই৷

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s

%d bloggers like this: